সাংবাদিক থেকে দক্ষ অভিনেতা! সাহাব আলীর উঠে আসার গল্প

0
292
Shahab Ali
Shahab Ali

ওয়েবসিরিজের দুনিয়ায় ‘The Family Man’ সিরিজ মানুষের কাছে ভীষণভাবে জনপ্রিয়। কিছুদিন আগেই এই সিরিজের দ্বিতীয় সিজন রিলিজ করেছে এবং সেটাও বেশ উপভোগ করেছে দর্শককূল। অনেক ক্ষেত্রে প্রথম সিজন তুখোড় হলেও দ্বিতীয় সিজন সেভাবে ছাপ ফেলতে পারেনা তবে এই ধারণা ভেঙে দিয়েছে ‘The Family Man’। আর এই সিরিজে অভিনয় করে অভিনেতা সাহাব আলী (Shahab Ali) যথেষ্ট নাম কিনেছেন।

সাজিদের চরিত্রে অভিনয় করে দুটি সিজনেই সকলের নজরে এসেছেন সাহাব। মনোজ বাজপেয়ী থেকে শুরু করে সামান্থার মতো বড় মাপের অভিনেতা অভিনেত্রীদের সাথে স্ক্রিন শেয়ার করেছেন তিনি। ‘The Family Man 2 ‘ তে সামান্থার সঙ্গে তার রসায়ন পছন্দ হয়েছিল দর্শকদেরও।

সাহাবের (Shahab Ali) আগের জীবন:

প্রথম থেকেই অভিনয়কে নিজের পেশা বানাতে চেয়েছিলেন সাহাব তবে বাস্তবে দিল্লি থেকে মুম্বাই আসার পর অর্থকষ্টে পড়তে হয় তাকে। তাই বাধ্য হয়েই সাংবাদিকতার কাজ করতে হয় অভিনেতাকে। কিন্তু মনে আশা ছিল অভিনেতা হবেন। এরপরে ফের নিজের প্যাশনকে বাছেন সাহাব এবং জীবনের চরম সিধান্ত নিয়ে ফেলেন। সাংবাদিকতার কাজ ছেড়ে দেন এবং মাকে জানান তিনি অভিনয় করতে চান। এরপর ভর্তি হয়ে যান ন্যাশনাল স্কুল অফ ড্রামায়।

কর্মজীবন:

অভিনয় শেখার সাথে সাথে নাটক, থিয়েটার করতে শুরু করেন। ‘জঙ্গুরা’ এবং ‘মুঘল-এ-আজম’ নাটকে অভিনয় করে তার পারিশ্রমিকেই ভালোভাবে চলে যাচ্ছিল। মুম্বাইতে আলাদা ফ্ল্যাট ভাড়া নিয়ে থাকতে শুরু করেছিলেন অভিনেতা কিন্তু গতবছরেই করোনায় বন্ধ হয়ে যায় নাটক ফলে আবার অর্থকষ্টে পড়ে যান অভিনেতা।এরপর বাধ্য হয়েই মুম্বাইয়ের ফ্ল্যাট ছেড়ে দিল্লি চলে যান তিনি। ‘The Family Man 2’ এর শ্যুটিং শেষ হয়ে যাওয়ার পরও দিল্লিতেই ফিরে যান।

The Family Man 2 :

এরপর ওয়েব সিরিজের দ্বিতীয় সিজনটি রিলিজ করার পর ফের দেশজুড়ে মানুষের কাছে জনপ্রিয়তা অর্জন করেছেন সাহাব (Shahab Ali)। প্রশংসা পেয়েছেন বহু মানুষের থেকে। তবে শুধু প্রশংসা দিয়ে তো আর কেরিয়ার গড়া যায়না। আগামী দিনে ভালো অভিনয় করে বলিউডে নিজের জায়গা তৈরি করতে চান সাহাব।

সম্প্রতি অন্য একটি ওটিটি প্ল্যাটফর্মে কাজ করার ডাক পেয়েছেন তিনি ফলে ধীরে ধীরে আশার আলো দেখছেন তরুণ অভিনেতা। আগামী দিনে আরো ভালো কাজ করে অর্থকষ্ট মিটিয়ে ফের মুম্বাই নিজের স্বপ্নের শহরে নিজের বাড়ি কেনার স্বপ্ন দেখছেন সাহাব আলী।

কেমন লাগলো অবশ্যই জানান

SHARE